Home > Blog > Baliati Palace > প্রত্নতাত্ত্বীক স্থাপনায় স্যুটিং বা চিত্রগ্রহনের আবেদন প্রক্রিয়া এবং শর্তাবলী

প্রত্নতাত্ত্বীক স্থাপনায় স্যুটিং বা চিত্রগ্রহনের আবেদন প্রক্রিয়া এবং শর্তাবলী

বালিয়াটি জমিদার বাড়ি প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরের পরিচালিত একটি প্রত্নতাত্ত্বীক স্থাপনা। এখানে স্যুটিং বা চিত্রগ্রহণ করতে হলে প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তর থেকে পূর্ব অনুমতি নিতে হয়। অনুমতি ব্যাতিত বাংলাদেশের কোন প্রত্নতাত্ত্বীক স্থাপনায় স্যুটিং বা চিত্রগ্রহন করা যাবে না। স্যুটিং/চিত্রগ্রহনের অনুমতির জন্য প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বরাবর নির্ধারিত ফর্ম এ আবেদন করতে হয়। এখান থেকে “ফর্মটি ডাউনলোড করুন।”

ফর্মটি ডাউনলোড করে A4 পেপারে পিন্ট করে যথাযথ ভাবে ফর্মটি পুরণ করুন। এবং নিন্ম ঠিকানা অনুযায়ী আগারগাঁও প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরে যেয়ে পুরণ কৃত ফর্মটি জমা দিন। যদি সবকিছু ঠিক ঠাক থাকে তবে আবেদনের দিন অথবা ২-১ দিনের মধ্যে স্যুটিং/চিত্রগ্রহনের জন্য অনুমতি পেয়ে যাবেন।

ঠিকানা:
প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরের
আগারগাঁও প্রশাসনিক এলাকা
এফ-৪/এ, শের-এ-বাংলানগর, ঢাকা- ১২০৭

প্রত্নতাত্ত্বীক স্থাপনায় স্যুটিং / চিত্রগ্রহন কালীন সময়ের অনুমতি প্রাপ্ত ব্যাক্তি/প্রতিষ্ঠানের কিছু শর্ত মেনে কাজ করতে হয়। শর্তসমূহ নিন্মরূপ:

(ক) সরকারী বিধি অনুযায়ী প্রস্তাবিত অনুষ্ঠান ধারনের জন্য প্রতি ঘন্টায় ৩,০০০/- (তিন হাজার) টাকা হারে ফি প্রদান করতে হবে।
(খ) অনুষ্ঠান চলাকালে কোন সরকারি সম্পদ ও পুরাকীর্তির ক্ষতিসাধন করা যাবে না।
(গ) দেশের বা সরকারের ভাবাদর্শ ক্ষুন্ন হয় অথবা ধর্মীয় অনুভুতিতে আঘাত হানে এমন কিছু করা যাবে না।
(ঘ) বিধি বহির্ভূত কোন কাজ করা যাবে না।
(ঙ) অনুষ্ঠান চলাকালে পুরাকীর্তির কোনভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হলে প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তর কর্তৃক নির্ধারিত ক্ষতিপূরণসহ গৃহীত অন্যান্য ব্যবস্থা অবশ্যই মানতে হবে।
(চ) অনুষ্ঠান চলাকালে উক্ত স্থানের নিরাপত্তার নিশ্চয়তা প্রদান করতে হবে।
(ছ) প্রযোজ্য ক্ষেত্রে প্রবেশ মূল্য দিতে হবে।
(জ) প্রত্নস্থলে অভ্যন্তরে মঞ্চ তৈরী এবং কোন প্রকার খাবার রান্না করা যাবে না।
(ঝ) সামাজিক ও নৈতিকতার পরিপন্থী কোন কাজ করা যাবে না।
(ঞ) নিজস্ব তত্ত্বাবধায়নে ও খরচে বিদ্যুতায়নের ব্যবস্থা করতে হবে।
(ট) দর্শকদের পরিদর্শনে বিঘ্ন সৃষ্টি করা যাবে না।
(ঠ) সংরক্ষিত প্রাচীণ ইমারতের দেয়ালে পেরেক (তারকাটা) লাগানো যাবে না।
(ড) রাজস্ব ফি এর উপর ১৫% ভ্যাট প্রদান করতে হবে।
(ঢ) স্যুটিং এর জন্য কোন সামিয়ানা টানানো / স্থাপনা তৈরী করা যাবে না।
(ণ) প্রত্নস্থাপনার ভেতরে/বারান্দায়/ছাদে কোন প্রকার স্যুটিং করা যাবে না।
(ত) নির্ধারিত ফি প্রদানের পর চিত্রায়ন শুরু করতে হবে।
(থ) পুরাকীর্তির অভ্যন্তরে প্রবেশের ক্ষেত্রে সকলকে প্রবেশ টিকিট সংগ্রহ করতে হবে।

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *